News

Biman News

মানসম্মত ইন-ফ্লাইট মিল ও কেবিন ড্রেসিং এর জন্য বিমান ফ্লাইট ক্যাটারিং সেন্টার(বিএফসিসি)-কে ‘ এক্সিলেন্ট অন টাইম পারফর্মেন্স-২০১৬’ পুরস্কারের জন্য মনোনীত করেছে মালয়েশিয়ান এয়ারলাইন্স কর্তৃপক্ষ।

আগামী ৬ এপ্রিল ২০১৭ জার্মানীর হামবুর্গ শহরে অনুষ্ঠিতব্য এক অনুষ্ঠানে আনুষ্ঠানিকভাবে এ পুরস্কার দেওয়া হবে।

মালয়েশিয়ান এয়ারলাইন্স ইন-ফ্লাইট অপারেশন্স বিভাগের প্রধান রহিমা ফারজান আলী বিষয়টি নিশ্চিত করে বিমানের ফ্লাইট ক্যাটারিং সেন্টার(বিএফসিসি)-কে জানিয়েছেন।

 

মানসম্মত খাবার ও কেবিন ড্রেসিং এর বিষয়ে বিএফসিসি ইতোমধ্যে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে আসা বিদেশী এয়ারলাইন্সগুলোর কাছে ব্যাপক গ্রহণযোগ্যতা অর্জন করতে পেরেছে।বাংলাদেশ বিমান ছাড়াও মালয়েশিয়ান এয়ারলাইন্স, ক্যাথে প্যাসিফিক এয়ারলাইন্স, ড্রাগন এয়ার এবং টার্কিশ এয়ারলাইন্স বিএফসিসি থেকে খাবার নেয়।এছাড়া আরো ১১টি বিদেশী এয়ারলাইন্সকে বিএফসিসি থেকে নিয়মিতভাবে কেবিন ড্রেসিং সেবা দেওয়া হয়।যাত্রীদের বিশেষায়িত খাবার চাহিদার কথা বিবেচনা করে বিএফসিসি সম্প্রতি ‘ডায়াবেটিক মিল এবং কিডস্ মিল’ চালু করেছে।

২০১৫-২০১৬ অর্থ বছরে বিমান ফ্লাইট ক্যাটারিং সেন্টার দেশী-বিদেশী এয়ারলাইন্সকে ২৮ লক্ষ মিল সরবরাহ করে ১১৯ কোটি টাকা রাজস্ব আয় এবং ২৮ কোটি টাকা নীট মুনাফা অর্জন করেছে।

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও সিইও এ এম মোসাদ্দিক আহমেদ বলেন, ‘ এ পুরস্কার লাভ ও সন্মান প্রমাণ করে দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া অঞ্চলে বিমানের ব্যবসা ও সেবা উত্তরোত্তর বাড়ছে’।

জনসংযোগ বিভাগের মহাব্যবস্থাপক শাকিল মেরাজ বলেন,‘এ পুরস্কার ছাড়াও সম্প্রতি আন্তর্জাতিক পর্যায়ে বেশ কিছু পুরস্কার পাওয়ার গৌরব অর্জন করেছে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স। মালয়েশিয়ার কুয়ালালামপুর আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে দক্ষিণ এশিয়ার সর্বাধিক সংখ্যক যাত্রী পরিবহনের জন্য ‘ফরেন এয়ারলাইন অব দ্য ইয়ার’ পুরস্কার অর্জন করেছে বিমান।এছাড়া সিংগাপুরের চাঙ্গী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স ২০১৬ সালে ‘ অন টাইম পারফরর্মেন্স’ সম্মাননায় ভূষিত হয়েছে’।

প্রসংগত উল্লেখ, বিমান ফ্লাইট ক্যাটারিং সেন্টার(বিএফসিসি)গুনগতমাণ বিষয়ে আইএসও ৯০০০, পরিবেশ মান বিষয়ে আইএসও ২২০০০, বিশ্বব্যাপী এয়ারলাইন্স সংস্থা আইএটিএ ক্যাটারিং কোয়ালিটি এ্যাসুরেন্স(আইসিকিউও)কমপ্ল্যয়ান্ট, হালাল কমপ্ল্যয়ানট সনদ এ্যান্ড বিএসটিআই সনদ অর্জন করেছে এবং এ সমস্ত সংস্থার মানদন্ড অনুযায়ী বিএফসিসি পরিচালিত হচ্ছে।

দেশী-বিদেশী এয়ারলাইন্সগুলো মানসম্মত খাবার ও ইন-ফ্লাইট সার্ভিস ছাড়াও সেবা খাতে দক্ষ মানব সম্পদ তৈরী করার লক্ষ্যে বিএফসিসি নিজস্ব ব্যবস্থাপনায় বৃটেনের সিটি এ্যান্ড গিল্ডস এর কারিগরী সহায়তায় পেশাগত প্রশিক্ষণ কোর্স চালু করেছে।

স্ক্যান্ডিরেভিয়ান এয়ার সার্ভিসেস, সুইডেন (এসএএস) কর্তৃক ১৯৮৯ সনে বিএফসিসি প্রতিষ্ঠিত হয় যা দেশের একমাত্র আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত ক্যাটারিং সেন্টার। বিমান ফ্লাইট ক্যাটারিং সেন্টার (বিএফসিসি)-তে বর্তমানে কর্মরত জনবল ৫৮৫ জন।