News

Biman News

                 

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের ঢাকা-ম্যানচেষ্টার ফ্লাইট বিজি ০০৭ আজ ৫ জানুয়ারী ২০২০ (রবিবার) ম্যানচেষ্টার-এর উদ্দেশ্যে ২৬৯ জন যাত্রী নিয়ে ঢাকা ছেড়ে গেছে। বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয়ের মাননীয় প্রতিমন্ত্রী জনাব মোঃ মাহবুব আলী এমপি প্রধান অতিথি হিসেবে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরে উপস্থিত থেকে ম্যানচেষ্টার ফ্লাইট উদ্বোধন করেন। তিনি মোনাজাত ও ফিতা কেটে ফ্লাইট উদ্বোধন করেন এবং সম্মাণিত যাত্রীদের সাথে কুশল বিনিময় করে তাদের বিদায় জানান। এসময় মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব, চেয়ারম্যান বিমান পরিচালনা পর্যদ, বিমানের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও সিইও, বিট্রিশ  ডেপুটি হাইকমিশনার সহ মন্ত্রণালয়, বিমান, সিভিল এভিয়েশন ও বিমানের পদস্থ কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

বিমান বহরে সদ্য সংযোজিত বোয়িং ৭৮৭-৯ ড্রিমলাইনার দিয়ে উদ্বোধন হচ্ছে ঢাকা-ম্যানচেণ্টার রুটের যাত্রা। সপ্তাহে ৩ দিন-রবিবার, মঙ্গলবার ও বৃহস্পতিবার ফ্লাইট পরিচালিত হবে। যুক্তরাজ্যের ম্যানচেষ্টারে প্রায় ৯০ হাজার বাংলাদেশী বসবাস করেন। তাদের অনেক দিনের আকাংখা ম্যানচেষ্টার রুটে বিমানের ফ্লাইট। এটি বিমানের ১৭তম ‍রুট। উল্লেখ্য, পূর্বে বিমানের এই রুটে বিমানের ফ্লাইট পরিচালিত হতো সেপ্টেম্বর ২০১২-এ উড়োজাহাজ স্বল্পতার কারনে অস্থায়ীভাবে রুটটি বন্ধ রাখা হয়।

নতুন বোয়িং ৭৮৭-৯ এ সর্বমোট আসন সংখ্যা ২৯৮টি। এ উড়োজাহাজে ৩০ টি বিজনেস ক্লাস,২১ টি প্রিমিয়াম ইকোনমি ক্লাস এবং২৪৭টি ইকোনমি ক্লাস রয়েছে। বর্তমান বিমান বহর পূর্বের যে কোন সময়ের তুলনায় অত্যাধুনিক ও তারুণ্যদীপ্ত। বহরে রয়েছে ৬টি ড্রিমলাইনারসহ মোট ১৮টি উড়োজাহাজ। প্রতিটি উড়োজাহাজে রয়েছে উন্নত যাত্রীসেবা সম্বলিত সকল সুযোগ-সুবিধা। আশা করা যাচ্ছে, যুক্তরাজ্যের বিপুল সংখ্যক প্রবাসী বাংলাদেশী এবং ইউরোপগামী বিভিন্ন দেশের ভ্রমণপিপাসু, শিক্ষার্থী ও ব্যবসায়ীগণ বিমান বহরের আধুনিক এ উড়োজাহাজগুলোতে ভ্রমনে আকৃষ্ট হবেন। প্রবাসী যুক্তরাজ্যের বিপুল সংখ্যক অভিজাত যাত্রীগণও আকৃষ্ট হবেন। আসন্ন প্রতিক্ষীত নিউইর্য়ক ও টরোন্টো রুটের হাব হিসেবে ম্যানচেষ্টার ব্যবহৃত হবে।

উদ্বোধন অনুষ্ঠানে মাননীয় প্রতিমন্ত্রী বলেন ‘‘ বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স তার বিভিন্ন সেবা নিয়ে নতুন বছর শুরু করবে এরকমই একটি সেবা বিমানের মোবাইল এ্যাপস চালু । বিমানের মোবাইল এ্যাপস ব্যবহার করে সম্মাণিত যাত্রীগণ নিজের মোবাইল থেকেই কিনতে পারবেন বিমানের সকল গন্তব্যের টিকেট। মূল্য পরিশোধ করতে পারবেন বিকাশ/রকেট/যেকোন কার্ডের মাধ্যমে। গুগল প্লে স্টোর অথবা আ্যাপল স্টোর থেকে যে কোন স্মার্টফোনে এ্যাপসটি ডাউনলোড করলে পৃথিবীর যেকোন প্রান্ত হতে বিমানের ফ্লাইট সংক্রান্ত সকল তথ্য পাওয়া যাবে। এই এ্যাপসের মাধ্যমে যাত্রীগণ ফ্লাইট সম্পর্কিত সকল তথ্য, ফ্লাইট ষ্ট্যাটাস,ফ্লাইট শিডিউল, সেলস সেন্টার সমূহের ঠিকানা, অনলাইন টিকেট ও রিফান্ড হেল্পডেক্স এবং টিকেট বুকিং সংক্রান্ত সমস্ত তথ্য জানতে পারবেন।’’